1. admin@banglabahon.com : Md. Sohel Reza :
বুথফেরত জরিপ: পশ্চিমবঙ্গে আবার ক্ষমতায় মমতা! | বাংলা বাহন
বৃহস্পতিবার, ০৫ অগাস্ট ২০২১, ০১:২৪ পূর্বাহ্ন
আপনিও লিখুন:
‘বাংলা বাহন’ নিউজপোর্টালে আপনাদের মতামত, পরামর্শ, সমসাময়িক কোন বিষয়ে লেখা, বিশ্লেষণ, তথ্য, ছবি ও ভিডিও পাঠাতে পারেন info@banglabahon.com ঠিকানায়।

বুথফেরত জরিপ: পশ্চিমবঙ্গে আবার ক্ষমতায় মমতা!

ওপার বাংলা ডেস্ক
  • প্রকাশ: বৃহস্পতিবার, ২৯ এপ্রিল, ২০২১
ছবি: পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।-গুগল

ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যে ভোটগ্রহণ শেষে এখন চলছে গণনা। পাওয়া যাচ্ছে বুথফেরত জরিপ। আর এই জরিপ অনুযায়ী আবার ক্ষমতায় বসতে যাচ্ছেন মমতা বন্দোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার ভোটদান প্রক্রিয়া শেষ হওয়ার পর বুথফেরত সমীক্ষার ফলে এগিয়ে আছে মমতার তৃণমূল কংগ্রেস। 

মোট আট দফায় ভোট প্রক্রিয়া বৃহস্পতিবার সম্পন্ন হয় পশ্চিমবঙ্গে।

ভারতের পাঁচ রাজ্যে নির্বাচন শেষ হয় বৃহস্পতিবার। আসামে ২৭ মার্চ থেকে ভোট হয়েছে তিন দফায়। এ ছাড়া তামিলনাড়ু, কেরালা ও পুদুচেরিতে এক দফায় ভোট প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে ৬ এপ্রিল। এরপর শুরু হয় গণনা। ফল প্রকাশ করা হবে রোববার। 

নির্বাচনের বুথ ফেরত সমীক্ষা ফলের একটি ইঙ্গিত মাত্র। সেই ইঙ্গিত সবসময় ঠিক হবে এমন নয়।

এনটিডিভির সমীক্ষা: এনটিডিভির সমীক্ষা অনুসারে, রাজ্যে ফের সরকার গড়তে চলেছে মমতা বন্দোপাধ্যায়ের দল তৃণমূল কংগ্রেস। বুথ ফেরত সমীক্ষায় দেখা গিয়েছে, তৃণমূল পেতে পারে ১৬৪ থেকে ১৭৪ আসন, বিজেপি পেতে পারে ১০৫ থেকে ১১৫। অন্যান্যরা পেতে পারে ১ থেকে ১৫টি আসন।

জন কি বাতের সমীক্ষা: জন কি বাতের বুথ ফেরত সমীক্ষায় ইঙ্গিত- এ বারের বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূল পেতে পারে ১০৪ থেকে ১২১ আসন। বিজেপি পেতে পারে ১৬২ থেকে ১৮৫ আসন। জোট পেতে পারে ৩-৯টি আসন।

এবিপি-সিএনএক্সের সমীক্ষা: এবিপি-সিএনএক্সের বুথ ফেরত সমীক্ষায় ইঙ্গিত- রাজ্যে ১৫৭ থেকে ১৮৫ আসন নিয়ে সরকার গড়তে চলেছে তৃণমূল, বিজেপি পেতে পারে ৯৬-১২৫টি আসন, জোট পেতে পারে ৮ থেকে ১৬ আসন।

টাইমস নাওয়ের সমীক্ষা: টাইমস নাও-সি ভোটারের সমীক্ষায় তৃণমূল পেতে পারে ১৫৮টি আসন, বিজেপি পেতে পারে ১১৫টি আসন, জোট পেতে পারে ১৯টি আসন

শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ...
© বাংলা বাহন সকল অধিকার সংরক্ষিত ২০১৯-২০২১।
ডিজাইন ও আইটি সাপোর্ট: বাংলা বাহন